1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : জাতীয় অর্থনীতি : জাতীয় অর্থনীতি
  3. [email protected] : lalashimul :
শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১, ০১:০২ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
ধানের চারায় বঙ্গবন্ধুর ছবি, অপেক্ষায় গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডের পায়ের টিস্যু ক্ষতিগ্রস্ত হলে, ‘রাইস থেরাপি’ চাকরির পেছনে না ছুটে শোল মাছ চাষে ভাগ্যবদল টানা ৮ দিন কোয়ারেন্টিন শেষে নিউজিল্যান্ডে টাইগারদের অনুশীলন শুরু প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগে আবেদন করবেন যেভাবে খুলনায় আওয়ামী লীগের কর্মসূচিতে লাঠিচার্জ: পুলিশের দুই এসআই ক্লোজড প্রধানমন্ত্রীর উপহার পাচ্ছেন লক্ষ্মীপুরের সেই মায়া, তিন কন্যার দায়িত্ব নিল প্রশাসন মুশতাকের স্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নওগাঁ আত্রাই‌য়ে হিরোইন ও ইয়াবাসহ দুইজন এবং গাঁজাসহ একজন  মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার আশুলিয়ায় দুই পক্ষ সংঘর্ষ, মূল হোতা আটক

ভাষার দাবি শুধু রাজনৈতিক নয়, বাঁচার দাবি: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট : বুধবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ১৩ বার দেখা হয়েছে

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন বলেছেন, ভাষার দাবি শুধু রাজনৈতিক দাবি নয়, এটা বাঁচার দাবি। একুশে ফেব্রুয়ারিতে আন্দোলনের ফলেই আমরা আমাদের স্বকীয়তা বজায় রেখেছি। ভাষা আন্দোলন হচ্ছে আমাদের স্বাধীনতার পূর্বসুরি। সেই থেকেই যে চেতনার সৃষ্টি হয়, সেই চেতনা ধরেই আমরা স্বাধীনতার সংগ্রামের দিকে অগ্রসর হই; স্বাধীনতাও সম্ভব হয়েছে।
বুধবার ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে ‘ভাষা আন্দোলনে জাতির পিতার ভূমিকা’ শীর্ষক তৃতীয় স্মারক বক্তৃতায় এসব কথা বলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।
তিনি আরও বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান শুধু দেশে নয়, বিদেশেও বাংলা ভাষা প্রতিষ্ঠা করেছেন। ভাষার দাবি শুধু রাজনৈতিক নয়, বাঁচার দাবি হওয়ায় আমরা বাংলা ভাষার স্বকীয়তা বজায় রেখেছি।
ড. মোমেন বলেন, বঙ্গবন্ধু ১৯৫২ সালের মে মাসে করাচিতে সংবাদ সম্মেলন করে বাংলা ভাষাকে রাষ্ট্র ভাষার করার দাবি তোলেন। বঙ্গবঙ্গু বাংলা ভাষাকে শুধু দেশে নয়, বিদেশেও প্রতিষ্ঠিত করেছেন। ১৯৫২ সালে তিনি নয়াচীনে গিয়ে সেখানেও বাংলা ভাষায় বক্তৃতা করেছেন। ’৭৪ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘে গিয়ে প্রথমবার বাংলায় বক্তব্য দিয়েছেন। একবারই তিনি সেখানে গিয়েছিলেন।

তিনি বলেন, একেবারেই তাজ্জব বিষয়! যে লোক (বঙ্গবন্ধু) ভাষার জন্য সংগ্রাম করেন, আমাদের স্বাধীনতার চেতনা, স্বকীয়তার চেতনা, স্বাধিকারের চেতনায় উন্মোচিত করেন। সেই লোকই (বঙ্গবন্ধু) আবার ১৯৭১ সালে স্বাধীনতার সংগ্রামে আন্দোলনের চাবিকাঠি, মুক্তির আন্দোলন শুরু করেন। দুটোর ক্ষেত্রেই বঙ্গবন্ধুর অবদান অবিস্মরণীয়।

 

Please Share This Post in Your Social Media

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২০ দৈনিক জাতীয় অর্থনীতি