1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : জাতীয় অর্থনীতি : জাতীয় অর্থনীতি
বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:৫১ পূর্বাহ্ন

সেবা খাতের বিদেশি কোম্পানিও ঋণ আনতে পারবে

রিপোর্টার
  • আপডেট : মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৪১৪ বার দেখা হয়েছে

সেবা খাতের বিদেশি প্রতিষ্ঠানগুলো বিদেশের সহযোগী প্রতিষ্ঠান ও শেয়ারহোল্ডার থেকে ঋণ আনতে পারবে। বিদেশি প্রতিষ্ঠান কার্যক্রম শুরুর ৬ বছর পর্যন্ত এই ঋণ আনার সুযোগ পাবে। আগে শুধু উৎপাদন খাতের বিদেশি প্রতিষ্ঠান এভাবে স্বল্পমেয়াদি ঋণ নেওয়ার সুযোগ পেত। আর ঋণ আনতে হতো কার্যক্রম শুরুর ৩ বছরের মধ্যে। এখন উৎপাদন ও সেবা, সব প্রতিষ্ঠানই ৬ বছরের মধ্যে ঋণ আনতে পারবে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রানীতি বিভাগ আজ এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে বিদেশি প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য ঋণ গ্রহণের ব্যবস্থা সহজ করেছে। এর ফলে দেশে কার্যক্রম চালানো বিদেশি মালিকানাধীন ও বিদেশি নিয়ন্ত্রণাধীন প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য ঋণ গ্রহণ সহজ হলো। বিদেশ থেকে ঋণ আনলে সুদহার কম হয়। এতে ব্যবসায় বেশি সুবিধা মেলে।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, এখন থেকে উৎপাদনকারী শিল্পপ্রতিষ্ঠান ছাড়াও সেবা খাতের শিল্পপ্রতিষ্ঠানও তাদের বিদেশি সহযোগী প্রতিষ্ঠান ও শেয়ারহোল্ডারদের থেকে স্বল্পমেয়াদি বিদেশি ঋণ গ্রহণ করতে পারবে। তবে এ সুবিধা ট্রেডিং খাতের ব্যবসার জন্য প্রযোজ্য হবে না। উৎপাদন ও সেবা কার্যক্রম শুরু থেকে ৬ বছর পর্যন্ত এ সুবিধা গ্রহণ করা যাবে।

আগে ৩ বছর পর্যন্ত এ সুবিধা গ্রহণ করা যেত। একই সঙ্গে বিনিময়যোগ্য বৈদেশিক মুদ্রায় এই ঋণ গ্রহণের ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ ৩ শতাংশ হারে সুদ প্রদান করা যাবে। তবে ঋণবাবদ প্রাপ্ত অর্থের নগদায়নকৃত টাকা মূল্যের ওপর ব্যাংকের ৩ মাস মেয়াদি আমানতের ওপর প্রযোজ্য সুদহার এই ঋণের ক্ষেত্রে আরোপ করা যায়। এ বিষয় কেন্দ্রীয় ব্যাংকে ২০১৯ সালেই প্রজ্ঞাপন দিয়েছে। এ ছাড়া নগদায়নকৃত টাকা ও সুদ বৈদেশিক মুদ্রায় রূপান্তরের মাধ্যমে তা মেয়াদ শেষে পরিশোধ করতে হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© ২০২০ দৈনিক জাতীয় অর্থনীতি